নারায়ন গঞ্জের তৈমুরের তিন মামলায় আগাম জামীন

জাতীয়

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি তৈমুর আলম খন্দকার নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ ও ফতুল্লা মডেল থানার পুলিশের দায়ের করা নাশকতাসহ চার মামলায় উচ্চ আদালত থেকে আগাম জামিন পেয়েছেন।
আজ সোমবার বিচারপতি হাবিবুল গণি ও বিচারপতি মোহাম্মদ আলীর সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চে শুনানি শেষে অভিযোগপত্র দাখিলের আগ পর্যন্ত তাঁর আগাম জামিনের আদেশ দেন।

তৈমুর আলম খন্দকারের পক্ষে মামলায় শুনানি করেন ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ। তাঁর সঙ্গে ছিলেন ব্যারিস্টার এহসানুর রহমান, ব্যারিস্টার এ বি এম রফিক ও ব্যারিস্টার মার-ই-য়াম খন্দকার।

তৈমুর আলম খন্দকার জানান, একতরফা নির্বাচনের যারা বিরোধিতা করবে, তাদের প্রতিহত করতেই এ মিথ্যা মামলা দেওয়া হচ্ছে। মিথ্যার আবর্জনার ভাগাড় এখন রাষ্ট্রের কাঁধে। রাষ্ট্রের কর্মচারীরা আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতিতে মনোযোগী না হয়ে বিএনপির নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা সাজানো মামলা দায়েরে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে। এতে সময় নষ্ট ও রাষ্ট্রের অর্থের অপচয় হচ্ছে। পুলিশকে সরকার নিয়ন্ত্রিত করে ফেলায় অপরাধপ্রবণতা বাড়ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *