নির্বাচন একটি সংগ্রাম! এরদোগান

নির্বাচনকে সংগ্রাম বলে আখ্যায়িত করেছে এরদোগান।
অনেক ইসলামপন্থিই বলছে উনি চরমোনাই পীরের মতো নির্বাচনকে জিহাদ বলে ঘোষণা করে নাই।


তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বলেছেন, প্রতিটি নির্বাচন এক একটি পরীক্ষা, সংগ্রাম অথবা মূল্যায়নের একটি সুযোগ। তিনি বলেন, আমরা গত মার্চের ৩১ তারিখের স্থানীয় সরকার নির্বাচনে জয়ী হয়েছি। রাজধানী আঙ্কারায় জাস্টিস এন্ড ডেভেলপমেন্ট (একে) পার্টির এক সমাবেশে একথা বলেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট।


নির্বাচনে জেতা যেন তার জন্য পৃথিবীর সবচেয়ে সহজ কাজ হয়ে দাড়িয়েছে। গত দেড় দশকে ১৫টির বেশি নির্বাচনে জিতেছেন কখনো ব্যক্তিগতভাবে কিংবা কখনো দলীয় ভাবে। সর্বশেষ তুরস্কের স্থানীয় সরকার নির্বাচনেও অধিকাংশ সিটি ও পৌরসভায় জিতেছে তার দল। দেশব্যাপী মোট ভোটের হারেও এগিয়ে আছে দলটি। নির্বাচনে ৪৪ দশমিক ৪ শতাংশ ভোট পেয়েছে দলটি


সমাবেশে ইস্তাম্বুলের মেয়র নির্বাচন নিয়ে তাদের আপত্তির কথা তুলে ধরেন এরদোগান। তিনি বলেন, ইস্তাম্বুলের নির্বাচন নিয়ে সব সন্দেহ দূর করতে হবে যাতে জনগন স্বস্তি পায়। নির্বাচনে কিছু আপত্তিকর কর্মকাণ্ডের বিষয়টি তুলে সমাবেশে তুলে ধরেন।

নির্বাচিত হয়েছেন। এ মাসের শুরুতে তিনি মেয়র হিসেবে শপথ নিয়েছেন। নির্বাচনের পরদিন নির্বাচন কমিশনের কাছে ইস্তাম্বুলের ভোট পুণরায় গননা করার আবেদন করেছিলে একে পার্টি। তবে সেই আবেদনে সাড়া না দিয়ে শুধু ৮টি এলাকার ভোট পুণরায় গণনা করেছে তুর্কি নির্বাচন কমিশন।

তবে এই নির্বাচনের বিপক্ষে আইনি লড়াই চালিয়ে যাবে তার দল, এমনটাই বলেছেন, প্রেসিডেন্ট 


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *